বগুড়ায় ২০ মাসে ৫ হাজার পারিবারিক বিরোধ নিষ্পত্তি

পুলিশ ।

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া: বগুড়ায় নারী ও শিশু হেল্প ডেস্কের মাধ্যমে গত ২০ মাসে ৫ হাজার পারিবারিক বিরোধ নিষ্পত্তি করেছে জেলা পুলিশ। একই সময়ে আপোষ যোগ্য না হওয়ায় মামলা হয়েছে ৫৪৯ টি।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) বগুড়া জেলা পুলিশের আয়োজনে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশে এতথ্য জানানো হয়।

শহরের শহীদ খোকন পার্কে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বগুড়া সদর থানার বিভিন্ন বিট পুলিশিং কমিটির সদস্যরা অংশ নেয়। নারী নির্যাতনবিরোধী আলাদা আলাদা শোভাযাত্রা নিয়ে এই সমাবেশে যোগ দেন তারা। এ সময় তাদের হাতে রাখা প্ল্যাকার্ডে লিখা ছিল ‘নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বন্ধ করি, নারী বান্ধব দেশ গড়ি, ‘বিট পুলিশিং বাড়ি বাড়ি, নিরাপদ সমাজ গড়ি, পুলিশ জনতা মিলেছে হাত, জঙ্গিবাদ নিপাত যাক।

বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঁইয়া জানান, ২০১৯ সালের জানুয়ারি মাস থেকে চলতি বছরের আগস্ট পর্যন্ত ২০ মাসে জেলা ১২ টি থানায় ৫ হাজার ৬৬৫টি অভিযোগ আসে নারী সংক্রান্ত। অভিযোগের মধ্যে যৌন হয়রানি, যৌতুক,বাল্য বিয়ে, ধর্ষণ ও ধর্ষণের চেষ্টা,গণধর্ষণ, শারিরিক ও মানসিক নির্যাতন, পারিবারিক কলহ, অপহরণ, প্রেমও পরকীয়া সংক্রান্ত পালিয়ে যাওয়া, শিশু পালিয়ে যাওয়া ও সাইবার ক্রাইম। এসব অভিযোগের অভিযোগের অধিকাংশ পারিবারিক বিরোধ এবং মিমাংসা যোগ্য। একারণে নারী হেল্প ডেস্ক কর্মকর্তার থানার অফিসার ইনচার্জের সহযোগিতায় বেশির ভাগ অভিযোগ মিমাংসা করে দিয়েছেন। এতে করে বাদী-বিবাদী উভয়ই মামলার হয়রানি রেহাই পেয়েছেন।

বিট পুলিশিং সমাবেশে পুলিশ সুপার আরো বলেন, আজকের এই অনুষ্ঠান ধর্ষণ এবং নারী নির্যাতনকারীদের জন্য একটি অশনি সংকেত। নারীদের ইভটিজিং, ধর্ষণের চেষ্টা এবং নির্যাতনের চেষ্টা করলে শুধুমাত্র পুলিশ নয়, এদেশের আপামর জনগণ সবাই একসাথে তাদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াবে। ধর্ষণকারীকে আমরা কখনই কোনভাবে ছাড় দেবো না।

কেবল মাত্র মিছিল মিটিং করে ধর্ষণ নির্মূল সম্ভব নয়। আমাদের পরিবারগুলোকেও সচেতন হতে হবে।

সমাবেশে বগুড়া শহরের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ছাড়াও বিভিন্ন পেশাজীবি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।

রাজনীতি/কাসেম

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here