বন্ধ হল শান্ত-দীঘি’র শুটিং

বিনোদন প্রতিবেদকঃ নির্মাতা শামীম আহামেদ রনির ‘টুঙ্গীপাড়ার মিয়া ভাই’ নামের একটি সিনেমা নির্মাণ করছিলেন। সিনেমাটির শুটিংও টানা চলছিল। হঠাৎ রনির ঠান্ডা জ্বর হওয়ায় সিনেমাটির শুটিং বন্ধ রাখা হয়েছে।

সম্প্রতি নতুন বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন দিঘী ও নবাগত নায়ক শান্ত খান। শাপলা মাল্টিমিডিয়ার পাঁচটি ছবিতে নায়ক-নায়িকা হিসেবে দেখা যাবে তাদের। কয়েকমাস ধরে টানা বন্ধ ছিল সিনেমা শুটিংয়ের দৃশ্যধারণের কাজ। তবে বেশ কিছু দিন হলো স্বাস্থ্যবিধি মেনে ফের শুটিং শুরু হয়েছে।

শামীম আহমেদ রনি ‘টুঙ্গীপাড়ার মিয়া ভাই’ সিনেমার শুটিং গত মাসের শেষ সপ্তাহে এফডিসিতে শুরু করেন। টানা শুটিং করে দৃশ্যধারণের কাজ শেষ করার কথা ছিল। হঠাৎ রনীর ঠান্ডা জ্বর হওয়ায় সিনেমাটির শুটিং ইউনিটের সবাই করোনা আতঙ্কে ভুগতে থাকেন। করোনা আতঙ্কে সিনেমাটির শুটিং গতকাল থেকে বন্ধ রয়েছে।

শাপলা মিডিয়ার প্রযোজক সেলিম খান শুটিং বন্ধ করে দেন। তিনি বলেন, ‘টুঙ্গীপাড়ার মিয়া ভাই’ সিনেমার টানা শুটিং করার কথা ছিল। হঠাৎ করে কাস্টিং ডিরেক্টর শামীম আহমেদ রনী ঠান্ডা-জ্বরে আক্রান্ত হন। এতে শুটিং ইউনিটে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। আতঙ্ক নিয়ে সিনেমার কাজ করা যায় না। তাই কাজ বন্ধ করে দিয়েছি।

‘টুঙ্গীপাড়ার মিয়া ভাই’ সিনেমাটি প্রযোজনা করছেন সেলিম খানের মেয়ে পিংকি খান। এর কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করছেন শান্ত খান ও দীঘি।

রাজনীতি/কামরুল

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here