শ্বাসকষ্ট বাড়ায় সিসিইউতে স্থানান্তর খালেদা জিয়াকে

রাজনীতি প্রতিবেদক প্রকাশিত : ৩ মে ২০২১

ফুসফুসে পানি জমে শ্বাসকষ্ট বাড়ায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে কেবিন থেকে সিসিইউতে (করোনারি কেয়ার ইউনিট) স্থানান্তর করা হয়েছে। তিনি রাজধানীর এভার কেয়ার হাসপাতালে চিকৎসাধীন রয়েছেন। সোমবার (৩ মে) বিকেল চারটায় তাঁকে সিসিইউতে নেওয়া হয়। খালেদা জিয়ার ব্যাক্তিগত চিকিসক ডা. এ জেড এম জাহিদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেছেন, খালেদা জিয়ার শ্বাসকষ্ট হঠাৎ বেড়ে যাওয়ায় আমরা তাঁকে সিসিইউতে নিয়ে এসেছি। এখন তাঁর অবস্থা একটু ভালো মনে হচ্ছে। পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

গত সপ্তাহের মঙ্গলবার রাতে কিছু পরীক্ষা করানোর জন্য খালেদা জিয়া গুলশানের বাসা থেকে দ্বিতীয়বারের মতো এভার কেয়ার হাসপাতালে আসেন। পরে হাসপাতালে তার সিটিস্ক্যানসহ কয়েকটি পরীক্ষা করার পর চিকিৎসকদের পরামর্শে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। এভার কেয়ারে ৭২০৪ কেবিনে তিনি আছেন। এর আগে গত ১৪ এপ্রিল সিটিস্ক্যান করাতে খালেদা জিয়াকে প্রথম এই হাসপাতালে আনা হয়েছিলো।

গত ১১ এপ্রিল খালেদা জিয়ার শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। এ সময় তার বাসভবন ফিরোজায় আরও ৮ জন ব্যক্তিগত স্টাফ করোনা আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হন। ২৪ এপ্রিল দ্বিতীয় দফায় খালেদা জিয়ার করোনা টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তখন তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ডা. সিদ্দিকী গণমাধ্যমকে বলেন, খুব লো টাইপের করোনা পজিটিভ এসেছে তার (খালেদা জিয়ার)।

এদিকে গত ৩০ এপ্রিল খালেদার করোনা আক্রান্ত ৮ জন স্টাফের সবাই সুস্থ হন। তবে তিনি করোনামুক্ত হয়েছেন কি না সে সময় এ বিষয়ে মুখ খোলেননি সংশ্লিষ্ট কেউ। চিকিৎসকরা বলছিলেন, তার শরীরে এখন করোনার কোনো উপসর্গ নেই। তিনি এখন এভার কেয়ার হাসপাতালে নন করোনা ইউনিটে ভর্তি আছেন।

গত ১ মে ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন গণমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন, মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে তার কোভিড পরবর্তী জটিলতার চিকিৎসা চলছে। তাঁর শারীরিক অবস্থা অনেকটা স্থিতিশীল আছে। তবে কারও সহযোগিতা ছাড়া তিনি হাঁটতে পারছেন না। ব্যক্তিগত দৈনন্দিন কাজেও তাঁর সাহায্যের প্রয়োজন হচ্ছে।

রাজনীতি/কাসেম

আপনার মতামত লিখুন :