স্ট্যাম্পে সই নিয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সাথে চেয়ারম্যানের প্রতারণা!

স্ট্যাম্পে সই নিয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সাথে চেয়ারম্যানের প্রতারণা!

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল: সরকারি বরাদ্দের ঘর দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের প্রতিবন্ধী সন্তান ও বৃদ্ধা মায়ের সাদা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলার সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ইসরাত জাহান তাপসীর বিরুদ্ধে।

ঘটনার শিকার প্রতিবন্ধী নজরুল ইসলাম হাওলাদার শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) বরিশাল প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলন করে এই অভিযোগ করেন।

তিনি উপজেলার রাকুদিয়া গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মৃত মো. মিলন হাওলাদারের ছেলে। স্বাক্ষর নেওয়া স্ট্যাম্প উদ্ধারের জন্য তাপসীর বিরুদ্ধে গত ১ সেপ্টেম্বর মামলা দায়ের করেছেন নজরুল ইসলাম।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জন্য সরকারি বরাদ্দের ঘর পাইয়ে দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে গত ২৯ জুলাই ১০০ টাকার দুটি সাদা ষ্ট্যাম্পে নজরুল ইসলাম ও তার মা মনোয়ারা বেগমের (৭০) স্বাক্ষর নেন সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান তাপসী। পরে তারা জানতে পারেন ঘর পাওয়ার জন্য স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর করতে হয় না। এরপর তাপসীর কাছে স্ট্যাম্প ফেরত চাইলে তিনি উল্টো ৪ লাখ টাকা দাবি করেন। একই সঙ্গে টাকা না দিলে পার্শ্ববর্তী উজিরপুর উপজেলার কালিরবাজারে থাকা মৃত মুক্তিযোদ্ধা মিলন হাওলাদারের জমি বিক্রি করে টাকা নেওয়ার হুমকি দেন তাপসী।

সংবাদ সম্মেলনে নজরুল ইসলাম জানান, কালিরবাজারের জমি আত্মসাতের জন্যই সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান তাপসী ওই ফাঁদ পেতেছিলেন। বিভিন্ন মাধ্যমে তারা জানতে পেরেছেন জমিটি বিক্রির চেষ্টা চালাচ্ছেন তাপসী। ওই জমি বিক্রি করে দেওয়া হলে তারা নি:স্ব হয়ে যাবেন বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

এ ব্যাপারে বাবুগঞ্জ উপজেলার আরেক মুক্তিযোদ্ধা সার্জেন্ট জাহাঙ্গীর জানান, ‘বিষয়টি সম্পর্কে তারা অবগত আছেন। নজরুলের বাবা একজন মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। তারা নিয়মিত ভাতাও পাচ্ছেন। তাদের সঙ্গে যা ঘটেছে তা দুখ:জনক।’

এ দিকে, অভিযোগের বিষয়ে সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ইসরাত জাহান তাপসী দৈনিক অধিকারকে বলেন, ‘তার প্রতিপক্ষ রাকুদিয়া গ্রামের বাসিন্দা সেলিম শরীফের ইন্ধনে তার বিরুদ্ধে মনগড়া এসব অভিযোগ তোলা হয়েছে। এ ব্যাপারে তিনি কিছুই জানেন না।’

রাজনীতি/কাজল

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here