তরুণীকে গণধর্ষণ; ভারতে ১১ বাংলাদেশির কারাদণ্ড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

শনিবার, ২১ মে ২০২২, রাত ০৮:১০


ভারতের বেঙ্গালুরুতে বাংলাদেশি এক তরুণীকে গণধর্ষণের ঘটনায় ১১ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছে সেদেশের একটি আদালত। দণ্ডপ্রাপ্ত সবাই বাংলাদেশি।

 

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, শুক্রবার (২০ মে) বেঙ্গালুরুর বিশেষ আদালত অভিযুক্তদের দোষী সাব্যস্ত করে রায় ঘোষণা করেন। এই মামলায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন, চাঁদ মিয়া ওরফে সবুজ, মোহাম্মদ রিফাতুল ইসলাম হৃদয় ওরফে টিকটক হৃদয়, মোহাম্মদ আলামিন হোসেন ওরফে রাফসান মন্ডল, রকিবুল ইসলাম ওরফে সাগর, মোহাম্মদ বাবু শেখ, মোহাম্মদ ডালিম এবং আজিম হোসেন।

মামলায় তানিয়া খান নামের এক নারীকে ২০ বছর ও মোহাম্মদ জামালকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। নুসরাত ও কাজল নামের দুই নারীকে ফরেনার্স অ্যাক্টের আওতায় দোষী সাব্যস্ত করে ৯ মাস করে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়া মামলায় একজন অভিযুক্ত ছিলেন ভারতীয়। তাকে অভিযোগ থেকে খালাস দিয়েছে আদালত।

 

গত বছরের মে মাসে বেঙ্গালুরুতে বাংলাদেশি এক তরুণীকে নির্যাতনের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। ভিডিওতে ওই তরুণীকে বিবস্ত্র করে বেশ কয়েকজন যৌন নির্যাতন চালাচ্ছিল। নির্যাতনকারীরাই পরবর্তীতে ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়। এ ঘটনায় ১২ জনকে গ্রেপ্তার করে ভারতীয় পুলিশ এবং ২৭ মে মামলা দায়ের করা হয়। নির্যাতনের সাথে জড়িত বাংলাদেশি যুবক টিকটক হৃদয়ের সম্পৃক্ততা পায় পুলিশ। 

 

তদন্তে ভারতীয় পুলিশ জানতে পারে, চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে চক্রটি বাংলাদেশ থেকে নারী ও তরুণীদের ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে পাচার করতো। পরবর্তীতে তাদের পতিতাবৃত্তিতে বাধ্য করা হতো।

এমএসি/আরএইচ

Link copied